top 10 indian ecommerce websites in bengali

 ভারতের সেরা দশটি E-commerce website 

আমাদের দেশ ভারত বিশাল জনসংখ্যার জন্য বহিঃবিশ্বে বেশ  পরিচিত।প্রায় 137 কোটি লোকের বাস এই দেশে। বিশ্বের সবচেয়ে জনবসতিপূর্ণ স্থানগুলির মধ্যে একটি। ঠিক চীনের পরেই দ্বিতীয় স্থানে ভারতের অবস্থান। আর এখনও, 137 কোটি লোকেদের মধ্যে ইন্টারনেটের অনুপ্রবেশ বেশ কম, মোট জনসংখ্যার 41 শতাংশে মানুষ বর্তমানে ইন্টারনেটের ব্যবহার করছেন।দেশের 137 কোটি মানুষের মধ্যে প্রায় 50 কোটি । 


তবে, কম ইন্টারনেটের অনুপ্রবেশ সত্ত্বেও, সামগ্রিক জনসংখ্যার আকারের জন্য  ভারতের ই-কমার্স সেক্টর এখন বিশাল আকার ধারণ করেছে। 2018 সালের হিসাবে, ভারতের ই-কমার্স সেক্টর ছিল প্রায়  US$ 48.5 বিলিয়ন এবং 2026 সালের মধ্যে এটি চারগুণ হয়ে US$ 200 বিলিয়নে পৌঁছাবে বলে আশা করা হচ্ছে। 

যেভাবে ইন্টারনেটের প্রসার হচ্ছে, সেই ভাবেই প্রসারিত হচ্ছে ভারতের ecommerce website গুলির ব্যবহার। বেশিরভাগ পিন কোড ecommerce  সাইটগুলি বর্তমানে সাপোর্ট করছে। এবং সকলে সস্তায় ও বিনা পরিশ্রমে বাড়িতে বসেই অনলাইনে অর্ডার করতে পছন্দ করছেন।

তাই 

আজ আমরা জেনে নেব ভারতের সেরা দশটি ecommerce website

আমরা শুধুমাত্র কাস্টমার বেসের উপর নির্ভর করে এই তালিকা তৈরি করিনি। আমরা বিবেচনা করেছি

  • User interface 
  • Customer support 
  • Seller support 
  • Return and replacement 
  • Brand value
  • Addons service 
  • এবং অবশ্যই customer base 

এবং তারপরেই এই তালিকা আপনার সামনে হাজির করেছি।
তো চলুন দেখে নেওয়া যাক,  ভারতের সেরা দশটি ecommerce website কি কি ?

শীর্ষ 10টি ভারতীয় ইকমার্স সাইট

ভারতের সেরা দশটি ই-কমার্স ওয়েবসাইট-এর সম্পর্কে আকর্ষণীয় বিষয় হল বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠিত কম্পানি ও ব্রান্ড ভারতের। অর্থাৎ ভারতীয় ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান দ্বারা তৈরি। বিদেশী কোন কোম্পানি এসে সেই ভাবে প্রতিষ্ঠিত হতে পারিনি, এই লিস্টে আমেরিকান ব্র্যান্ডের সংখ্যা খুবই কম। এবং এর থেকেই প্রমাণিত আমাদের দেশ খুব দ্রুতগতিতে উন্নত হচ্ছে।

যদিও ভারতীয় ই-কমার্স সেক্টর এখনও বিকশিত হওয়ার প্রাথমিক স্তরে রয়েছে , তবে ই-কমার্সের বাজার একটা সুযোগ সমৃদ্ধ বাজার। এখানে বড় ছোট সবাই সমান,  অনেক লোক  ভারতীয় ই-কমার্স সাইট গুলোর সঙ্গে জুড়ে  নিজেদের অর্থনৈতিকভাবে উন্নতির স্বাদ গ্রহণ করছেন। 

এখন পর্যন্ত, ভারতের ই-কমার্স সেক্টরে ইলেকট্রনিক্স যেমন, মোবাইল, টিভি, মোবাইল এক্সেসরিজ, ফ্রিজ, ইন্ডাকশন কুকার ইত্যাদি পোশাক ও নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস সবচেয়ে বেশি বিক্রি হয়। তবে অন্যান্য ক্যাটাগরির জিনিসও কিছু কম বিক্রি হয় না।

ভারতের ই-কমার্স সেক্টর দেখতে কেমন তা প্রদর্শন করতে, আমরা SimilarWeb থেকে ডেটা ব্যবহার করে সেরা 10টি পারফর্মিং ই-কমার্স সাইট কম্পাইল করেছি৷ 

1. Amazon.in



মাসিক ভিজিটর আনুমানিক : 322.54 মিলিয়ন

statista এর রিপোর্ট অনুসারে আমেরিকান ই-কমার্স জায়ান্ট অ্যামাজন, ভারতে প্রায়  89 শতাংশ দর্শকদের কাছে পৌঁছেগেছে বলে জানা যাচ্ছে । 2010 সালে ভারতে amazon.in  চালু হওয়ার পর থেকে, ক্রমাগত উন্নয়ন ও customer acquisition এর ফলে বর্তমানে অ্যামাজনে এখন আনুমানিক 322.54 মিলিয়ন মাসিক ভিজিটর ভিজিট করে।

সামগ্রিক পরিসংখ্যান অনুসারে, এই কথা তো মানতেই হবে  যে ভারতের প্রাথমিক ই-কমার্স ক্যাটাগরি হল ইলেকট্রনিক্স, amazon.in এর ভিজিটরের আগ্রহও এই ক্যাটাগরির  দিকে ঝুঁকছে।

 তাছাড়া, amazon echo  এবং Alexa, অ্যামাজন প্রাইম, ডিজিটাল মিডিয়া, পুরুষদের ফ্যাশন, মহিলাদের ফ্যাশন, home & decor, নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিষ , খেলাধুলার সরঞ্জাম ,ইত্যাদি ইত্যাদি হাজারো রকমের পন্য দ্রুতগতিতে নিজের গ্রাহকের বাড়ির দরজায় খুব কম দামে পৌচ্ছে দিয়ে, আমাদের এই লিস্টের প্রথম স্থান অধিকার করে নিয়েছে। 

2. Flipkart.com



মাসিক ভিজিটর আনুমানিক : 242.62 মিলিয়ন

অ্যামাজন এর তুলনায় ফ্লিপকার্টে প্রতি মাসে 100 মিলিয়ন কাস্টমার কম গেলেও, ফ্লিপকার্ট  এমন একটি সাফল্যের  গল্প যা প্রত্যেক ভারতীয় গর্ব। 2007 সালে প্রতিষ্ঠিত ফ্লিপকার্ট, বহুদিন যাবৎ ভারতের সবথেকে বড় ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম ছিল। এবং এখনও আন্তর্জাতিক হেভিওয়েট ই-কমার্স সাইট গুলির সাথে পূর্ণ প্রতিযোগিতা করে চলেছে। অ্যামাজনের মতো ফ্লিপকার্টেও সব ধরনের জিনিস পাওয়া যায়। তবে 2018 সালে ওয়ালমার্টের কাছে 16 বিলিয়ন ডলারে ফ্লিপকার্ট নিজেকে বিক্রি করে দেয় । তাই এখন আর ফ্লিপকার্ট ভারতীয় কোম্পানি নেই, কিন্তু আমাদের লিস্টের দ্বিতীয় অবস্থানে আছে।

অ্যামাজনের মতো ফ্লিপকার্টেও ইলেকট্রনিক্স ও মোবাইল সবচেয়ে জনপ্রিয়।  এবং তারপরেই ফ্যাশন অর্থাৎ পোশাক, আসবাবপত্র, খেলাধুলার সরঞ্জাম, বই ইত্যাদি।  হ্যাঁ অ্যামাজনের মতো ফ্লিপকার্টেও বই পাওয়া যায়। 

3. Alibaba.com



মাসিক ভিজিটরের আনুমানিক সংখ্যা: বিশ্বব্যাপী 175.95 মিলিয়ন (ভারতে 4.19 শতাংশ)

আলিবাবা ই-কমার্স সাইটে সাধারণত ভারতীয়রা কেনাকাটায় ততটা আগ্রহী নয়। তবে আলিবাবার পরিষেবা  ভারতে উপলব্ধ  আছে। এবং ভারতের থেকে সাইটটিতে প্রায় 4 শতাংশ লোক যায় কেনাকাটা করতে।কিন্তু   আন্তর্জাতিকভাবে আলিবাবা 175 মিলিয়ন ভিজিটর প্রতি মাসে আকৃষ্ট করতে সফল হয়েছে। 

তবে গত দেড় বছর তাদের একটু টালমাটাল অবস্থা চলছে।এবং সেই কারণেই গত এক বছরে alibaba group holding ltd  এর বাজার দর (stock price) প্রায় 56শতাংশ কমে গেছে।

1999 সালে প্রতিষ্ঠিত  আলিবাবা গ্রুপ হোল্ডিং তারপরেই একটি বিশাল বহুজাতিক কোম্পানি। এবং তারা পাইকারি ও খুচরা দুইভাবেই পন্য বিক্রি করে।  

4. Snapdeal.com



মাসিক ভিজিটরের আনুমানিক সংখ্যা: 56.41 মিলিয়ন

আরেকটি ভারতীয়-প্রতিষ্ঠিত ই-কমার্স জায়ান্ট, স্ন্যাপডিল এমন একটি  অনলাইন বৈচিত্র্যময় শপিং প্ল্যাটফর্ম যা গ্রাহক এবং বিনিয়োগকারী দুইজনেরই মনোযোগ আকর্ষণ করেছে। 

2010 সালে snapdeal চালু হওয়ার পর থেকে  Snapdeal বড় বড়  বিনিয়োগকারী যেমন আলিবাবা গ্রুপ, সফ্টব্যাঙ্ক, এবং ফক্সকন থেকে তাদের ইনভেস্টমেন্ট সংগ্রহ  করেছে। 

Snapdeal এর  সবচেয়ে বড় সেলিং ক্যাটাগরি হল ইলেকট্রনিক্স।কিন্তু তবুও  snapdeal অন্যদের মতোই বিভিন্ন ধরনের প্রডাক্ট ক্যাটাগরিতে নিজেদের প্রসিদ্ধ  করার চেষ্টা করছে। যেমন ফ্যাশন, খেলনা,বই,কসমেটিক্স, হোম ডেকরেশন, হেলথ কেয়ার ইত্যাদি অনেক ধরনের পন্য snapdeal এ উপলব্ধ। 

5. myntra.com



মাসিক ভিজিটর  আনুমানিক : 48.03 মিলিয়ন

Myntra এমন একটি ই-কমার্স সাইট যা ভারতের বাইরে 2007 সালে চালু হয়েছে। myntra তখন থেকেই দেশের অন্যতম প্রধান ফ্যাশন, হোম এবং লাইফস্টাইল ই-কমার্স সাইট হয়ে উঠেছে। 

Myntra এর প্রধান প্রতিযোগী ছিল jabong.com। 2014 সালে ফ্লিপকার্ট দুজনকেই কিনে নেয়। ফ্লিপকার্টের কাছে  বিক্রি হওয়ার ফলে, প্রতিযোগী Jabong.com-এর প্রচার ও প্রসার ফ্লিপকার্ট কম করে দেয়। এবং এই কারণই  myntra একটা বাড়তি সুবিধে পায় ও ব্যাবসা  আরও বাড়তে সাহায্য করে৷ 

সাধারণত myntra একটি ফ্যাশন প্রডাক্টের খুচরো বিক্রেতা। Myntra বিভিন্ন ধরণের নামী আন্তর্জাতিক এবং  স্থানীয় ব্র্যান্ডের প্রডাক্ট স্টক করে নিয়ে বিক্রি করে। যার মধ্যে পুরুষদের, মহিলাদের , ও বাচ্চাদের পোশাক এবং ঘর সাজানোর জিনিসই মুখ্য৷

6. indiamart.com



মাসিক ভিজিটর  সংখ্যা: 47.23 মিলিয়ন 

IndiaMART হল ভারতের বৃহত্তম অনলাইন B2B ( business to business ) মার্কেটপ্লেস, যা 1999 সালে ক্রেতাদের সরবরাহকারীদের সাথে সংযুক্ত করার জন্য প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল।

 বর্তমানে, IndiaMART-এর কাছে ভারতে অনলাইনের B2B সেক্টরের প্রায় 60 শতাংশ মার্কেট শেয়ার রয়েছে। 

IndiaMART মূলত  প্রস্তুতকারক, সরবরাহকারী এবং রপ্তানিকারকদের সংযুক্ত করে। তাদের প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে একে অপরের কাছে তাদের পণ্যের প্রচার ও প্রকাশ করতে পারে তাও একেবারে বিনামূল্যে ।

আর কি কি পাওয়া যায় ? আপনি সম্ভবত কল্পনাও করতে পারছেন না কি কি পাওয়া যায়। IndiaMART-এ বিল্ডিং এবং নির্মাণ, শিল্প যন্ত্রপাতি, পোশাক, ইলেকট্রনিক্স, এমনকি রাসায়নিক, রং এবং ক্যামিকেল  সহ অগনিত ক্যাটাগরি রয়েছে।

7. Bookmyshow.com



মাসিক ভিজিটর সংখ্যা: 43.25 মিলিয়ন

BookMyShow ভারতের বৃহত্তম অনলাইন টিকিট বিক্রেতা। 2007 সালে যাত্রা শুরুর পর থেকে, bookmyshow ভারত সহ সংযুক্ত আরব আমিরাত, শ্রীলঙ্কা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ এবং ইন্দোনেশিয়া এই পাঁচটি দেশে অনলাইন টিকিট পরিষেবা চালু করেছে । 

সিনেমা, ইভেন্ট, নাটক, খেলাধুলা, বিভিন্ন স্যোসাল অ্যাক্টিভিটি সহ স্মৃতিস্তম্ভেরও টিকিট বিক্রয়  করা হয় BookMyShow তে।

সেইসাথে প্যানেলের জন্য বিভিন্ন  পণ্যদ্রব্য বিক্রি করা BookMyShow একটা এক্সট্রা ইনকাম। bookmyshow এর প্রধান বিনিয়োগকারী হল আন্তর্জাতিক খ্যাতিসম্পন্ন, TPG গ্রোথ।

8. Nykaa.com



মাসিক ভিজিটর  সংখ্যা: 20.84 মিলিয়ন

Nykaa আরেকটি ভারতীয় প্রতিষ্ঠিত ব্র্যান্ড, যা একটি  ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম হিসাবে শুরু করে। এবং তারপর 2015 সালে ইন্দিরা গান্ধী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে একটি স্টোর খোলার মধ্যে দিয়ে প্রসারিত হয়। 

2012 সালে প্রতিষ্ঠিত, Nykaa একটি অনলাইন স্টোর হিসাবে মেকআপ, ত্বক (skin care) , চুল, পারসোনাল ম্যাসিনারি ,পারসনাল, কেয়ার, সুগন্ধি সহ বিভিন্ন সৌন্দর্য সামগ্রী বিক্রি করে।

 সাম্প্রতিক সময়ে nykaa নিজের Ipo এনেছিল । এবং  nykaa তার পরিসরকে আরো প্রসারিত করেছে। অনন্য আরও ব্র্যান্ডের সাথে তার নিজস্ব প্রসাধনী এবং সৌন্দর্যের সামগ্রী অন্য বাজারে এনেছে। 

9. firstcry.com



মাসিক ভিজিটর  সংখ্যা: 16.94 মিলিয়ন

2010 সালে প্রতিষ্ঠিত, firstcry.com এমন একটি ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম যারা শিশু এবং কিশোরদের পণ্যগুলির বিশেষজ্ঞ।

মাহিন্দ্রা ভেঞ্চারের মালিকানাধীন, firstcry.com এশিয়ার সবচেয়ে বড় শিশুদের পণ্যের ই-কমার্স সাইট। তাছারা এখন সারা দেশে তাদের ফিজিক্যাল স্টোরও রয়েছে। 

ছোটদের জন্য যা যা  প্রয়োজন তার প্রায় সবই firstcry.com এ পাওয়া যায়। এর  মধ্যে রয়েছে পোশাক, খেলনা, বই, খাওয়ানো এবং নার্সিং আইটেম, সেইসাথে মা এবং প্রসূতি পণ্য। 

10. 1mg.com (TATA)



মাসিক ভিজিটর  সংখ্যা: 14.62 মিলিয়ন

1mg এখন tata 1mg হয়ে গেছে। tata 1mg একটি ভারতীয় অনলাইন ফার্মেসি যা তার গ্রাহকদের জন্য স্বাস্থ্যপরিসেবা সকলের কাছে সহজ এবং সাশ্রয়ী করে তোলে। সাইটটি শুধুমাত্র ওষুধ এবং অন্যান্য স্বাস্থ্য সংক্রান্ত  পণ্য কেনার কোনো প্ল্যাটফর্ম নয়, tata1mg একটি পোর্টাল হিসাবে কাজ করে যেখানে ক্রেতা কী নিচ্ছেন তা আরও ভালভাবে বোঝার জন্য প্রত্যেক ওষুধের সাইড এফেক্ট, কমন ইউস ও অনলাইন ডাক্তারের সঙ্গে পরামর্শ ও তার প্রেসক্রাইবশন সব ব্যাবস্থাই আছে। 

2015 সালে প্রতিষ্ঠিত, 1mg অনলাইন পরামর্শ, ল্যাব পরীক্ষা এবং চিকিৎসা সংক্রান্ত তথ্য, সেইসাথে ফিটনেস এবং পুষ্টি পণ্য এবং কোনো ওষুধ না পাওয়া গেলে তার সম্পূরক, স্বাস্থ্যসেবার ডিভাইস যেমন ওয়েট মেশিন, ব্যক্তিগত যত্ন, আয়ুর্বেদ পণ্য এবং হোমিওপ্যাথি আইটেম বিক্রি করে। 

আমাদের সঙ্গে সংযুক্ত থাকতে আমাদের    

  ফলো করুন '

**ALL LOGO & BRAND NAME USE IN THIS BLOG IS COPYRIGHT THERE RESPECTIVE OWNER.



একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

1 মন্তব্যসমূহ